শিশু ইউটিউবার রায়ানের কোটিপতি হওয়ার গল্প
Published : Monday, 18 December, 2017 at 9:38 PM, Count : 160
শিশু ইউটিউবার রায়ানের কোটিপতি হওয়ার গল্পইউটিউবে খেলনা দেখিয়ে রায়ান যতটা মজা করতে পারে, তা দেখে হিংসা হবে যে কোনো ছেলের। আর তার ব্যাংক ব্যালান্স দেখে ঈর্ষান্বিত হবে যে কোনো প্রাপ্তবয়স্ক মানুষ।
ছয় বছরের রায়ান একজন ইউটিউব স্টার। তার কাজ ইউটিউবে নতুন নতুন খেলনার মোড়ক খোলা। কেবল এই কাজ করেই গেল বছর রায়ান আয় করেছে এক কোটি দশ লাখ ডলার। খবর বিবিসির।
ইউটিউবে তার চ্যানেলটির নাম ‘রায়ান টয়’স রিভিউ।’ নিত্য নতুন খেলনার মোড়ক খোলার পর রায়ান সেসব নিয়ে খেলছে এ রকম ভিডিওই সেখানে দেখানো হয়।
বিজনেস ম্যাগাজিন ‘ফোর্বস’ এর হিসেবে রায়ান হচ্ছে সবচেয়ে বেশি আয় করা ইউটিউব স্টারদের একজন। তার অবস্থান এখন আট নম্বরে। ২০১৫ সালে প্রথম ইউটিউবে রায়ানের ভিডিও আপলোড করা হয়েছিল। এ পর্যন্ত ইউটিউবে তার ভিডিওগুলো দেখা হয়েছে ১ হাজার ৭০০ কোটি বার। জুন ২০১৬ হতে জুন, ২০১৭ পর্যন্ত রায়ানের চ্যানেলটি ইউটিউবে দেখা হয়েছে আটশ’ কোটি বার। কিন্তু রায়ানের ভিডিও আর তার খেলনা নিয়ে কেন মানুষের এত আগ্রহ?
ইন্টারনেটে খুবই পরিচিত মুখগুলোর একটি হওয়া সত্ত্বেও রায়ানের পরিচয় নিয়ে রয়েছে ব্যাপক রহস্য। তার নামের শেষাংশ কি, রায়ান কোথায় থাকে, কেউ জানে না। রায়ানের বাবা-মা মাত্র অল্প কয়েকবার গণমাধ্যমে সাক্ষাত্কার দিয়েছেন। একটি সাক্ষাত্কারে রায়ানের মা দাবি করেছেন যে যখন তার ছেলের বয়স মাত্র তিন বছর, তখন এই ইউটিউব চ্যানেল করার আইডিয়া রায়ানই দিয়েছিল। তবে রায়ানের মা নিজেও তার নিজের পরিচয় প্রকাশ করেননি।
ইউটিউবে রায়ানের প্রথম ভিডিওটি ছিল প্লাস্টিকের ডিম ভেঙে সেখান থেকে খেলনা বের করা। আশি কোটি বার এই ভিডিও দেখা হয়েছে। তার ভিডিও চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করে এক কোটি মানুষ। রায়ানের ভিডিওর অন্যতম বৈশিষ্ট্য হচ্ছে তার স্বতঃস্ফূর্ততা। নিত্য নতুন খেলনা নিয়ে সে যেভাবে খেলে, সেটা লোকে পছন্দ করে। একটি রিভিউতে বলা হচ্ছে, ‘রায়ান যেভাবে তার খেলনার প্যাকেট খোলে, তখন সেটি একটি নাটকীয় পরিবেশ তৈরি করে।’ সমালোচকরা অবশ্য বলছে, রায়ানের বাবা-মা আসলে তাকে ব্যবহার করে একটি সফল ব্যবসা চালাচ্ছে। তারা এই শিশুকে ‘এক্সপ্লময়ট’ করছে। কিন্তু তার মা এ কথা মানতে নারাজ। আমরা তো তার স্কুল রুটিনে কোন ব্যাঘাত ঘটাচ্ছি না। আমরা ছুটির দিনেই সব ভিডিও রেকর্ড করি। যখন সে স্কুলে থাকে তখন এগুলো এডিট করা হয়। রায়ানের এসব ভিডিও খেলনার বিক্রি বহুগুণ বাড়িয়ে দিচ্ছে বলে মনে করেন বিশ্লেষকরা। রায়ানকে বর্ণনা করা হচ্ছে ইউটিউবের তরুণতম সফল তারকা হিসেবে।
- মুঠোয়বিশ্ব ডেস্ক


« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


সর্বশেষ সংবাদ
সর্বাধিক পঠিত
সম্পাদক ও প্রকাশক: আলহাজ্ব মিজানুর রহমান, উপদেষ্টা সম্পাদক : স্বপন কুমার সাহা, নির্বাহী সম্পাদক: নজমূল হক সরকার।
সম্পাদক ও প্রকাশক কর্তৃক শরীয়তপুর প্রিন্টিং প্রেস, ২৩৪ ফকিরাপুল, ঢাকা থেকে মুদ্রিত।
সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : মুন গ্রুপ, লেভেল-১৭, সানমুন স্টার টাওয়ার ৩৭ দিলকুশা বাণিজ্যিক এলাকা, ঢাকা-১০০০ থেকে মুদ্রিত।, ফোন: ০২-৯৫৮৪১২৪-৫, ফ্যাক্স: ৯৫৮৪১২৩
ওয়েবসাইট : www.dailybartoman.com ই-মেইল : news.bartoman@gmail.com, bartamandhaka@gmail.com
Developed & Maintainance by i2soft